কারাভোগের প্রতিশোধ নিতে ভাতিজার কিরিচের কোপে চাচার হাতের কব্জি বিচ্ছিন্ন…

  • 7
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    7
    Shares

ভাতিজার কিরিচের কোপ হাতের কবজি বিচ্ছিন্ন হওয়া আলী হোসেন ছবিঃ সংগৃহীত

কক্সবাজারের পেকুয়া উপজেলা সদর ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ড় মইয়াদিয়া এলাকায় শুক্রবার সকালে চাচার দেওয়া অপহরণ মামলায় কারাভোগের প্রতিশোধ নিতে চাচার হাতের কব্জি কেটে বিচ্ছিন্ন করা হাত পুকুরে ফেলে দিয়েছে ভাতিজা। হাতকাটার পাশাপাশি এ সময় চাচাকে উপর্যুপরি আঘাতে শরীরের একাধিক ক্ষত সৃষ্টি হয়েছে। খবর পেয়ে পেকুয়া থানার পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করলেও কাউকে আটক করতে পারেনি।
গুরুতর আহত আলী হোসেনকে স্থানীয়রা উদ্ধার করে প্রথমে পেকুয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেন।

আহত চাচা আলী হোসেন মুন্সি (৫০) পেকুয়া সদর ইউনিয়নের মইয়াদিয়া গ্রামের মৃত নুর আহমদের ছেলে ও ৩নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি। হামলাকারী আলমগীর আহতের বড় ভাই আশরাফ মিয়ার ছেলে ও পেশায় টমটম চালক।

স্থানীয়রা জানিয়েছেন, শুক্রবার সকালে আলী হোসেন মইয়াদিয়া স্টেশন থেকে একটি মিশুক গাড়ি (একধরণের অটোরিক্সা) করে পেকুয়া বাজারের দিকে আসছিলেন। অল্প কিছুদূর গাড়িটি আসার পর পূর্ব থেকে ওৎপেতে থাকা আলমগীর গাড়িতে বসা আলী হোসেনকে কিরিচের কোপ দেন। কোপটি প্রতিহত করতে হাত এগিয়ে দেওয়ায় কিরিচের কোপে ডান হাতের কব্জি পর্যন্ত বিচ্ছিন্ন হয়ে রাস্তায় পড়ে যায়। কোপ খেয়ে আলী হোসেন পালানোর চেষ্টা করলে হামলাকারী আলমগীর ধাওয়া দিয়ে শরীরে আরো ৭ থেকে ৮টি স্থানে কোপ দেন। আহত আলী হোসেনকে উদ্ধার করতে গিয়ে কামাল হোসেন নামে অপর এক ব্যক্তিও গুরুতর আহত হন। এসময় বিচ্ছিন্ন হাতের কবজি সড়কের পার্শ্ববর্তী একটি পুকুরে ফেলে দিয়ে বীরদর্পে পালিয়ে যায় আলমগীর। পরে স্থানীয়রা জড়ো হয়ে এগিয়ে এসে আহত দুইজনকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যায়। পরে পুকুরে তল্লাশি করে বিচ্ছিন্ন হাতটিও উদ্ধার করা হয়।

আহতের এক নিকটাত্মীয় জানান, আলী হোসেনের কলেজ পড়ুয়া মেয়ে গত ১২ জুন অপহৃত হয়। এ ঘটনায় তিনি বাদি হয়ে ২৬ জুন পেকুয়া থানায় একটি অপহরণ মামলা দায়ের করেন। তার ভাতিজা আলমগীর ওই মামলার ২নম্বর আসামি। গত দেড় মাস আগে আলমগীরকে স্থানীয়রা আটক করে পুলিশে দেয়। কারাভোগ করে গত এক সপ্তাহ আগে তিনি জামিনে বের হয়েছেন। তারপর থেকে মামলার বাদি আপন চাচাকে প্রাণে হত্যার চেষ্টা করে আসছিল আলমগীর।

এই ঘটনায় পেকুয়া থানার অফিসার ইনচার্জ মো. কামরুল আজম বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়। আলী হোসেনের হাত থেকে বিচ্ছিন্ন কবজি সড়কের পার্শ্ববর্তী একটি পুকুর থেকে উদ্ধার করা হয়েছে। বিষয়টি গুরুত্বসহকারে তদন্ত করা হচ্ছে। ঘটনার সাথে জড়িতকে ধরতে মাঠে রয়েছে পুলিশ।

এসি/বিবিএন /স্টাফ রিপোর্টার।


  • 7
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    7
    Shares

Leave a Reply

Your email address will not be published.