পটিয়ায় নিখোঁজ কৃষকের ভাসমান লাশ মিলল খালে…

  • 1
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    1
    Share

ছবিঃ সংগৃহীত

শনিবার (২৯ আগস্ট) রাত ৮ টার দিকে পটিয়ার শোভনদন্ডী ইউনিয়নে নিজের কৃষিভূমিতে গিয়ে নিখোঁজ হওয়ার ৬ ঘণ্টা পর বৃদ্ধ কৃষকের লাশ উদ্ধার হল স্থানীয় নাভিখালী খালে ভাসমান অবস্থায়।

পরিবারের দাবি ভূমি বিরোধে তাকে হত্যা করেছে প্রতিপক্ষ। নিহত কৃষকের নাম হারাধন চৌধুরী। তিনি শোভনদন্ডী ইউনিয়নের ৮ নম্বর ওয়ার্ডের মাস্টার বাড়ির মৃত দেবেন্দ্র লাল চৌধুরীর ছেলে।

নিহত হারাধন চৌধুরীর ছেলে উজ্জ্বল চৌধুরী জানান, শনিবার দুপুর ২টার দিকে কৃষিকাজ করার জন্য ঘর থেকে বের হয় তার পিতা হারাধান চৌধুরী।

সন্ধ্যা ৭টার দিকেও বাড়িতে ফিরে না আসলে এলাকায় খোঁজাখুঁজি করার একপর্যায়ে বাড়ি থেকে আধা কিলোমিটার দূরে গেলে নাভিখালী খালে তার লাশ পাওয়া যায়।

তিনি আরও বলেন, দীর্ঘদিন ধরে বাড়ির পাশের একজনের সাথে জায়গা নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল। গত তিন মাস আগে তার বাবা বাদি হয়ে আদালতে একটি মামলা দায়ের করেন। এ মামলা দায়েরের ফলে এ ঘটনা ঘটেছে।

এ বিষয়ে পটিয়া থানার উপ-পরিদর্শক নাজমুল কবির বলেন, শোভনদন্ডী ইউনিয়নের নাভিখালী খাল থেকে ভাসমান অবস্থায় একজন কৃষকের লাশ উদ্ধার করা হয়। সুরতহাল করে লাশ নিয়ে আসা হয়েছে। ময়নাতদন্ত হলেই বিস্তারিত বলা যাবে। রবিবার সকালে চমেক হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হবে।

এসি/বিবিএন /স্টাফ রিপোর্টার।


  • 1
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    1
    Share

Leave a Reply

Your email address will not be published.