পরপর দুই ম্যাচে সানরাইজার্স হায়দরাবাদের বোলিং জেতাল দলকে

  • 2
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    2
    Shares

চ্যাম্পিয়ন মুম্বাই ইন্ডিয়ানসকে প্রথম ম্যাচে হারিয়ে নিজেদের শক্তির জানান দিয়েছিল চেন্নাই সুপার কিংস। কিন্তু তারপরে দুই ম্যাচে দেখা গেল তার বিপরীত ছবি। বড় রান তাড়া করতে গিয়ে বলতে গেলে কোন রকম চেষ্টা ছাড়াই রাজস্থান রয়্যালস ও দিল্লি ক্যাপিটালস এর সঙ্গে হেরেছে সিএসকে।

কিন্তু ধনীর কাছে বয়স যেন একটা সংখ্যা। তিনি যে কোন সময় ম্যাচকে ঘুরিয়ে নিতে পারে বলে দাবি করেন তাঁর সমর্থকরা। আইপিএলে চতুর্থ ম্যাচ সাতদিন বিশ্রামের পর খেলতে নেমে দেখা গেল আবারো সেই ছবি। এবার প্রতিপক্ষ সানরাইজ হায়দ্রাবাদের রান তাড়া করতে গিয়ে ৭রানে হেরেছে তিনবারের চ্যাম্পিয়ন দল চেন্নাই সুপার কিংস।

টসে জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয় ওয়ার্নার। হায়দ্রাবাদের ৩ ব্যাটিং স্তম্ভ ডেবিট ওয়ার্নার , জনি বেয়ারস্টো ও কেন উইলিয়ামসন আউট হন ১১ ওভারের মধ্যে। তখনকার রান মাত্র ৬৯।দুই তরুণ ভারতীয় প্রিয়ম গর্গ ও অভিষেক শর্মা মিলে জুটি গড়েন ৭৭ রানের।হায়দরাবাদকে লড়াই করার মতো স্কোর এনে দেন তরুণ প্রিয়ম গর্গ।

ছবি:সংগৃহীত

এই জুটিতেই ম্যাচ ঘুরে গেল।প্রিয়মের ব্যাট থেকে আসে ২৬ বলে ৬টি চার ও ১টি চারে সাজানো অপরাজিত ৫১ রান এবং অভিষেক ৩১ করে আউট হন। এই জুটির ওপর ভর করে চেন্নাইয়ের লক্ষ্য দাঁড়ায় ১৬৫ রান।

চেন্নাইয়ের শুরুটা হয় হায়দ্রাবাদের মত। ৪ উইকেট হারিয়ে বসে চেন্নাই ৪২ রান তুলতেই। জাদেজা এবং ধনী জুটি করেও জেতাতে পারল না ম্যাচ। জাদেজা ৩৫ বলে ৫০ রান করে আউট হন এবং ধনী ম্যাচের শেষ পর্যন্ত রয়ে গেলেন।

এমএস ধোনি।

ধোনির ৩৬ বলে ৪৭ রানের ইনিংসটা শেষ পর্যন্ত জেতাতে পারেনি চেন্নাইকে। শেষ পর্যন্ত ৭ রানে জিতে নেয় সানরাইজ হায়দ্রাবাদ। ম্যাচসেরা হন প্রিয়ম।

স্টাফ রিপোর্টার/বে অব বেঙ্গল নিউজ


  • 2
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    2
    Shares