বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রীর প্রতিকৃতি না টানানোর প্রতিবাদে ছাত্রলীগের মানববন্ধন

বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রীর প্রতিকৃতি না টানানোর প্রতিবাদে ছাত্রলীগের মানববন্ধন
বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রীর প্রতিকৃতি না টানানোর প্রতিবাদে ছাত্রলীগের মানববন্ধন
চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় অফিসার সমিতির অফিসে বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রীর প্রতিকৃতি না টানানোর অভিযোগে এর বিচার চেয়ে মানববন্ধন করেছে চবি ছাত্রলীগ।

আজ বুধবার (২৪ফেব্রুয়ারি) দুপুর ১টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনের সামনে এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। শেষে চবি ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা উপাচার্য বরাবর স্মারকলিপি প্রদান করেন।

বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রীর প্রতিকৃতি না টানানোর প্রতিবাদে ছাত্রলীগের মানববন্ধন

এসময় বক্তারা সংবিধান অবমাননার দায়ে সমিতির সভাপতি ও সম্পাদকসহ বর্তমান কমিটিকে পদত্যাগের আহবান জানান। তারা এসময় তিন দফা দাবি রেখে, গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশের সংবিধানের ৪ক অনুচ্ছেদের সুস্পষ্ট অবমাননা করে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় অফিসার সমিতির অফিসে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি এবং সরকারি আদেশের লঙ্ঘন করে প্রধানমন্ত্রীর প্রতিকৃতি না টাঙানোয়, সমিতির সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক কর্তৃক আমানত হলে কর্মরত ডেপুটি রেজিষ্ট্রার কামরুল আলম রাশেদের বাসায় কর্মরত অবস্থায় হলের অবসরপ্রাপ্ত সাবেক কর্মচারী মোঃ আবুল হোসেনের অস্বাভাবিক মৃত্যুর ঘটনা টাকার বিনিময়ে ধামাচাপা দেয়ার প্রচেষ্টা এবং সমিতির সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক কর্তৃক চিহ্নিত শিবির ক্যাডার আমানত হল শিবিরের সাবেক সভাপতি শহীদ সহ আরো কয়েকজন সাবেক শিবির-ছাত্রদল ক্যাডারের পদোন্নতির জন্য চেষ্টা তদবির চালানোর প্রতিবাদে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ আজ দুপুর একটায় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনের সামনে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ করে।

এবং উপাচার্য বরাবর ৭২ ঘন্টার ভিতর সমিতির বর্তমান কমিটি ভেঙ্গে দিয়ে নতুন নির্বাচন অনুষ্ঠান করার অনুরোধ জানান।

বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রীর প্রতিকৃতি না টানানোর প্রতিবাদে ছাত্রলীগের মানববন্ধন
বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রীর প্রতিকৃতি না টানানোর প্রতিবাদে ছাত্রলীগের মানববন্ধন


এবং উক্ত ন্যক্কারজনক ঘটনাসমূহের সাথে জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক বিচারের দাবি জানান।
অন্যথায় শাখা ছাত্রলীগ পরবর্তী পদক্ষেপ গ্রহণ করবে।

চবি ছাত্রলীগ নেতা মো. ফোরকানুল আলমের সঞ্চালনায় এতে বক্তব্য রাখেন- ইব্রাহীম খলিল মুকুল, সাদাফ খান, জয় বিশ্বাস, শফিকুল ইসলাম, আশরাফ খান শুভ, ফরহাদ হোসাইন, এস চৌধুরী, মাহফুজুল হুদা লোটাস, আবরারুল হক, কামরুল ইশরাদী, হাফিজুল ইসলাম, সাইফুল ইসলাম, মিশু মমিনুল, ইবনুল ইন্তেজার, সুজন, রবিন, ইমরান, আবু হেনা রনি, জোনায়েদ হোসেন জয়, আরিফুল ইসলাম, হৃদয় সাহা, শহীদুল্লাহ কায়সার, জোহান, শরীফ, ইমরান হোসাইন, আমির, আরিফ, মিলু, সোপান, মাহমুদ, তারেক, সাব্বির, ইফতি, সৌমিক, সনি, তানভীর, সাজ্জাদ, ফয়সাল, হামজা, কামরুজ্জামান প্রমুখ।

চবি ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক সম্পাদক ইকবাল হোসেন টিপুর সাথে এ বিষয়ে বে অব বেঙ্গল নিউজ যোগাযোগ করলে তিনি বলেন, আমরা অফিসার সমিতির কর্মকাণ্ডের সুষ্ঠু তদন্ত ও দোষীদের কঠোর শাস্তি দাবি জানাচ্ছি। আগামী ৭২ ঘণ্টার মধ্যে শাস্তির ব্যবস্থা না করলে লাগাতার কর্মসূচি চালিয়ে যাব।

চবি প্রক্টর ড. রবিউল হাসান ভূঁইয়া বলেন, ‘আমরা বিষয়টি জেনেছি। বিষয়টি উপাচার্য মহোদয়কে অবহিত করেছি। এ বিষয়ে শ্রিঘ্রই ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’’

বে অব বেঙ্গল নিউজ / BAY OF BENGAL NEWS